আমাদের নিউজ পোর্টাল ভিজিট করুন ...

নওয়াব ফয়জুন্নেসা সরকারি কলেজে শিক্ষকদের জমজমাট প্রাইভেট সিন্ডিকেট

বিশেষ প্রতিবেদনঃ [শুক্রবার, ০৬ এপ্রিল ০১২] শিক্ষাই জাতির মেরুদন্ড, আর জাতির মেরুদন্ড গড়ার কারিগর হল শিক্ষক। সেই শিক্ষক যখন মাএাতিরিক্ত প্রাইভেট ফি নিয়ে শিক্ষার্থীদের উপর জুলুম করেন তখন কিবা বলার থাকে শিক্ষার্থীদের যাদের অধিকাংশই মধ্যবিত্ত পরিবারের
নওয়াব ফয়জুন্নেসা সরকারি কলেজের হিসাববিজ্ঞান, ব্যবস্হাপনা, ইংরেজি বিভাগের শিক্ষকের চরম সংকট। শিক্ষক সংকটের কারনে নিয়মিত ক্লাস হয়না। ইন্টারমেডিয়েট ও অনার্স ১ম বর্ষে মোটামুটি ক্লাস হলেও অনার্স ২য়, ৩য়, ৪র্থ ও ডিগ্রি সেকশানে তেমন কোন ক্লাস হয়না বল্লেই চলে।..
ইন্টারমেডিয়েট এর এক শ্রেণী কক্ষে ছয় শতাধিক ছাত্রছাত্রী ক্লাস করে।অধিক ছাত্রছাত্রীর কারনে শিক্ষার্থীরা ক্লাসে পড়া বুঝে নিতে পারেনা। ফলে তারা প্রাইভেট মুখী হতে বাধ্য হয়।

এই সুযোগে নওয়াব ফয়জুন্নেসা সরকারি কলেজের কিছু শিক্ষক বিশেষ করে হিসাববিজ্ঞান বিভাগের লেকচারার মোহাম্মদ সানাউল্লাহ(হিসাব বিঙ্গান বিভাগের একমাএ শিক্ষক) মাএাতিরিক্ত টিউশন ফি নেন। আগে যেখানে একজন শিক্ষকের কাছে টিউশন ফির রেট ছিল প্রতি ১২ ক্লাস ৫০০ টাকা এবং প্রতি ব্যাচে ২০-৩৫ জন ছাত্রছাত্রী একসাথে পড়ান।

কয়েকদিন আগে ঐ একই শিক্ষক ছাত্রছাত্রীদের বলেন বর্তমান মাস থেকে প্রাইভেট ফি প্রতি ১২ ক্লাস ৮০০ টাকা দিতে হবে। আমাদের লাকসামকে কিছু শিক্ষার্থী জানান, সব শিক্ষকরাই এখন থেকে ৮০০ টাকা করে নিবেন। যা শিক্ষার্থীদের মর্মাহত করে এবং শিক্ষার্থীরা তাতক্ষণিক প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

একজন অনার্স শিক্ষার্থী বলেন তাদের ৩-৪ বিষয় প্রাইভেট পড়া ছাড়া উপায় নেই। এই কলেজের বেশির ভাগ শিক্ষার্থী নিম্ন ও মধ্যবিও পরিবারের। এত টাকা দিয়ে প্রাইভেট পড়ার সামর্থ অনেক শিক্ষার্থীরই নেই। এ অবস্থায় পড়ালেখা ছেড়ে দেওয়া ছাড়া শিক্ষার্থীদের আর কোন উপায় নেই। প্রাইভেট পড়ুয়া প্রচুর শিক্ষার্থী পেয়েও শিক্ষকেরা শিক্ষার্থীদের উপর জুলুম করছে। এর কি কোন প্রতিকার নেই? শিক্ষক যারা আছে তারাও যথাযথ ক্লাস নেন না। কলেজ কতৃপক্ষ ও সরকারের কাছে শিক্ষার্থীদের দাবী শিক্ষক সংকট দূরীকরণ, কলেজের অবকাঠামোগত উন্নয়ন ও শিক্ষার সুষ্ঠ পরিবেশ রক্ষা করুন। এই কলেজের পূর্বে ঐতিহ্য, সুনাম, সুখ্যাতি ফিরিয়ে আনার দাবী শিক্ষার্থীদের সরকারের এবং কলেজ কতৃপক্ষের কাছে। সমৃদ্ধ সুখী ও দেশপ্রেমিক নাগরিক গঠনে ছাত্রছাত্রীদের সুযোগ করে দিন।


 সম্পাদনা : মাহমুদ হাসান , আউটপুট এডিটর



বিজ্ঞাপন মুক্ত এ ব্লগের প্রতিটি খবরে রয়েছে এক ঝাঁক মেধাবী তরুণের অক্লান্ত পরিশ্রম ও সর্বোচ্চ প্রযুক্তির ব্যবহার। তাই আমাদের খবর আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করে আমাদেরকে উৎসাহিত করুন।