আমাদের নিউজ পোর্টাল ভিজিট করুন ...

এশিয়া কাপ ফাইনাল বৃহস্পতিবার : বিদ্যুৎ থাকবে

এফএনএস: [বৃহস্পতিবার, ২২ মার্চ ০১২] বৃহস্পতিবার এশিয়া কাপ ক্রিকেটের ফাইনাল উপলক্ষে সারাদিন নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এদিন সারা দেশে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ রাখতে দুটি সারকারখানা ঘোড়াশাল ও পলাশ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এছাড়া সারা দেশের সিএনজি স্টেশন বন্ধ থাকবে।..
বুধবার সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে সেচ মৌসুমে নিরবিচ্ছিন বিদ্যুৎ সরবারাহ নিয়ে আরইবি, পিডিবি, ডেসা ডেসকো, বরেন্দ্র উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ, পেট্রোবাংলাসহ বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সংশ্লিষ্টরা বৈঠক শেষে এ কথা জানিয়েছেন।
বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর জ্বালানি উপদেষ্টা ড. তৌফিক-ই-এলাহী জানান, চলতি বোরো মৌসুমে সেচ কাজে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যাহত রাখতে রাত ১১ টা থেকে সকাল ৭টা পর্যন্ত আট ঘণ্টা নিরবিচ্ছিন্নভাবে গ্রামাঞ্চলে বিদ্যুৎ সরবরাহ দেয়া হবে। তৌফিক-ই-এলাহী বলেন, কৃষিতে অগ্রাধিকার দিতে বাকিদের কষ্ট হলেও সহানুভূতির সাথে এটি মেনে নিতে হবে। এ সময় দেশে বিদ্যুতের লোডশেডিং থাকবে ৮০০ মেগাওয়াওয়াটের মতো।
এ লক্ষ্যে সন্ধ্যা ছয়টা থেকে সকাল ছয়টা পর্যন্ত শিল্প কলকারখানা বন্ধের আহবান জানানো হয়েছে।
তিনি জানান, বর্তমানে নতুনভাবে বিদ্যুৎ চাহিদা বেড়েছে ১৩০০ মেগাওয়াট।
সেচ এলাকায় এ বছর বিদ্যুৎ সরবরাহ ভালো উল্রেখ করে বিদ্যুৎ সচিব মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, সেচ মৌসুমে সেচ এলাকায় ৩০ শতাংশ এবং অন্যান্য এলাকায় ৭০ শতাংশ বিদ্যুৎ সরবরাহ রাখা হবে। প্রয়োজনে সেচ এলাকায় সরবরাহ বাড়িয়ে ৭৫ শতাংশ এবং অন্যান্য এলাকায় ২৫ শতাংশ করা হবে। রংপুর, টাঙ্গাইল, কুমিল্লায় ডেভেলপমেন্ট বেশি হয়েছে এ কারণে চাহিদা বেড়েছে বলে উল্লেখ করেন সচিব।
বিদুৎ সচিব বলেন, বৈঠকে নেয়া সিদ্ধান্ত আজ থেকেই কার্যকরের জন্য বলা হয়েছে। বুধবার  সম্ভব না হলেও বৃহস্পতিবার থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে।
সচিব বলেন, সারা দেশের ৫৩৫টি সিএনজি স্টেশন এ সময় বন্ধ রাখার ফলে ৩৫ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস বিদ্যুৎ উৎপাদনে অতিরিক্ত যোগ হবে। সারা দেশে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ রাখতে ছয় হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। বুধবার থেকে ঘোড়াশাল ও পলাশ সার কারখানা বন্ধ রাখা হবে।
তিতাসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুল আজিজ জানান, বিদ্যুৎ লোডশেডিং রয়েছে ৬০০ থেকে ৮০০ মেগাওয়াট। এই লোড শেডিং কমাতে আগামী দুই মাস সিএনজি স্টেশন বিকেল তিনটা থেকে রাত ৯ টা পর্যন্ত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।
বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর জ্বালানি উপদেষ্টা, বিদ্যুৎ সচিব ছাড়াও জ্বালানি সচিব মো. মেসবাহ উদ্দিন, পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান অধ্যাপক হোসেন মনসুর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।





লাকসাম মনোহরগঞ্জ নাঙ্গলকোটে ২৪ ঘণ্টার খবরের আপডেট পেতে আমাদের পেজটি লাইক করুন। পেজটি লাইক করতে এখানে ক্লিক করুন। আপনার একটি লাইকই আমাদের অনুপ্রেরণা। undefined