আমাদের নিউজ পোর্টাল ভিজিট করুন ...

লাকসাম মনোহরগঞ্জে ফসলি জমিতে ইটভাটা

এমএসআই জসিম:[শনিবার,০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১] লাকসাম লাকসামের নবগঠিত মনোহরগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ফসলি জমিতে ইটভাটা গড়ে ওঠায় হাজার হাজার একর ফসলি জমি কমে গেছে ফলে অত্র অঞ্চলে কোটি কোটি টাকার ফসল উত্পাদন ব্যাহত হচ্ছে জানা গেছে, লাকসাম লাকসামের নবগঠিত মনোহরগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে প্রায় ২০টি ইটভাটা রয়েছে এছাড়া নতুন করে সরষপুর ইউপি বোর্ড অফিসের পূর্ব পাশে জনৈক নাসির উদ্দিন বাইশগাঁও পূর্ব মাঠে গোটরা মৌজায় দুলাল মিয়া অবৈধভাবে ইটভাটা নির্মাণের চেষ্টা করছে..
অধিকাংশ ইটভাটা গড়ে উঠেছে ফসলি জমিতে এসব ইটভাটায় প্রতিবছর কোটি কোটি টাকার ইট তৈরি করছে মালিকরা ইট তৈরির প্রধান উপকরণ মাটি ইটভাটার মালিকরা ভাটার বাইরের ফসলি জমি থেকে এসব মাটি সংগ্রহ করায় জমির উত্পাদন ক্ষমতা জমির উর্বরতা শক্তি কমে যাচ্ছে ইটভাটার আশপাশে কৃষকদের আবাদি জমি রয়েছে কিন্তু ইটভাটার কারণে জমিতে চাষাবাদ করতে পারে না কৃষক জমিতে সেচের পানির ড্রেন বন্ধ ইটভাটার চারপাশে বিভিন্নভাবে বাধা সৃষ্টি করা হচ্ছে আবাদি জমিগুলোতে উচ্চ ফলনশীল ধান চাষাবাদ করতে না পেরে জমি পতিত রেখেছে কৃষক কৃষকরা জানান, ইটভাটা স্থাপনের কারণে আশপাশের কৃষিজমিতে কাঙ্ক্ষিত পরিমাণ ফসল উত্পাদন হয় না মরে যাচ্ছে অনেক গাছ লোকজনের মধ্যে দেখা দিয়েছে নানা রোগবালাই, হাঁপানি, কাশি, চর্মরোগসহ বিভিন্ন ধরনের রোগে আক্রান্ত হচ্ছে মানুষ ইটভাটার ধোঁয়া ধুলাবালিতে পার্শ্ববর্তী এলাকার লোকজন সর্দি-কাশিসহ নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে ভাটার মালিকদের ট্রাক ট্রলি চলাচলের কারণে রাস্তাগুলো নষ্ট হয়ে যাচ্ছে ইটভাটার কারণে মানুষ আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে এদিকে সরকারের নির্দেশ অনুযায়ী ১২০ ফুট স্থায়ী চিমনি ব্যবহারের বিধান থাকলেও নবগঠিত মনোহরগঞ্জ উপজেলার কিছু কিছু ইটভাটার মালিক স্থায়ী চুল্লি ব্যবহার করছে না আবার অনেক ইটভাটার বৈধ লাইসেন্সও নেই কিছু ইটভাটায় গোপনে কাঠ টায়ার পোড়ানো হচ্ছে টায়ার পোড়ানো পরিবেশ মানব দেহের জন্য ক্ষতিকর কথা জেনেও তা মানা হচ্ছে না
undefined